Home / News / চোরের কাছে মিনতি

চোরের কাছে মিনতি

বাগানের সাতটি বনসাই গাছ চুরি হওয়ায় জাপানি এক দম্পতি এখন শোকে মুহ্যমান। গাছগুলো উদ্ধার করতে না পেরে শেষ পর্যন্ত সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে তাঁরা চোরের প্রতি এগুলোর যত্ন নেওয়ার কাতর মিনতি জানিয়েছেন। বলেছেন, গাছগুলো তাঁরা সন্তানের মতো ভালোবাসেন। চুরি যাওয়া ওই বনসাইগুলোর মধ্যে একটির বয়স ৪০০ বছর।

সেইজি ইমুরা ও তাঁর স্ত্রী ফুয়ুমি ইমুরার পরিবার কয়েক প্রজন্ম ধরে বনসাই ব্যবসার সঙ্গে জড়িত। রাজধানী টোকিওর কাছে সাইতামায় তাঁদের বসবাস। সেখানে পাঁচ হাজার বর্গমিটারের একটি বিশাল বনসাইয়ের বাগান রয়েছে তাঁদের। ওই বাগান থেকে গত মাসে সাতটি বনসাই চুরি হয়। পুলিশকে জানানোর পরও প্রিয় বনসাইগুলোর খোঁজ পাননি তাঁরা। এরপর উপায়ন্তর না দেখে ফেসবুকে স্ট্যাটাস দেন সেইজি ও তাঁর স্ত্রী। স্ট্যাটাসে সেইজি লিখেছেন, ‘আমাদের কেমন লাগছে, তা বলে বোঝানো যাবে না। গাছগুলো আমাদের কাছে অমূল্য সম্পদের মতো।’ তিনি লিখেছেন, ‘চোরকে আমি অবশ্যই ঘৃণা করে যাব। কিন্তু তাঁর উদ্দেশে আমি বলতে চাই, দয়া করে আমার বনসাইগুলোকে নিয়মিত পানি দেবেন। ওদের যত্ন নেবেন।’ সেইজি বলেন, চুরি হওয়া বনসাইগুলোর মধ্যে একটির সঙ্গে তাঁদের পরিবারের কয়েক প্রজন্মের আবেগ জড়িত। ‘শিম্পাকু জুনিপার’ নামের ওই বনসাইয়ের বয়স ৪০০ বছর। এএফপিকে সেইজি জানান, চুরি হওয়া বনসাইগুলোর বাজারমূল্য প্রায় কোটি ইয়েন। সিএনএনের খবরে বলা হয়েছে, গাছগুলোর কোনো কোনোটির বাজারমূল্য ১ লাখ ১৮ হাজার মার্কিন ডলার।

ইমুরার স্ত্রী ফুয়ুমি সিএনএনকে বলেন, ‘আমরা বনসাইগুলোকে নিজের সন্তানের মতো করে বড় করেছি। শিম্পাকু বনসাই যত্ন পেলে আজীবন বেঁচে থাকবে। কিন্তু পানি ছাড়া এগুলো সাত দিনও বাঁচতে পারবে না।’

About admin

Check Also

মাশরাফি, তামিমের দুই রকম আক্ষেপ

৩৮১ রান তাড়া করে ৩৩৩। ম্যাচ শেষে অতৃপ্তি—অস্ট্রেলিয়াকে যদি আরও কম রানে আটকানো যেত! ৩৪০-এর …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *